২১শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, মঙ্গলবার, ৬ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৩ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি

শিরোনামঃ-

কুমিল্লার দেবীদ্বার উপজেলায় ভূয়া ডাক্তারের পরিচয় ফাঁস

বিল্লাল হোসেন, দেবিদ্বার,কুমিল্লা করেসপন্ডেন্ট।

আপডেট টাইম : সেপ্টেম্বর ০৯ ২০২১, ২২:৫৯ | 638 বার পঠিত

কুমিল্লা জেলার দেবীদ্বার উপজেলার রাজামেহার বাজারের ভূইয়া ফার্মেসী ও প্রেসক্রিপশন পয়েন্টের মালিক মোঃ সুমন ভূইয়ার শিক্ষাগত যোগ্যতা না থাকার পরেও দীর্ঘদিন যাবৎ নিজের নামের পাশে ডাক্তার ব্যবহার করে আসছে। এমনকি ডাক্তার নামীয় তার প্রেসক্রিপশন প্যাডে নিজের নামে ডাক্তার ব্যবহার করার পাশাপাশি ডি,এম,এ এবং এক্স-পি-টি। আরো মা ও শিশু রোগের বিশেষ প্রশিক্ষণ প্রাপ্ত উল্লেখ করে সাধারণ জনগণকে ধোঁকা দিয়ে আসতেছে। সাধারণ জনগণ দীর্ঘদিন যাবৎ ভোগান্তির পরে দেবীদ্বার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্মকর্তা আহমেদ কবির এর বরাবর অভিযোগের পর।
গত ০২-০৯-২০২১ ইং তারিখ বৃহস্পতিবার বিকাল ৪টার সময় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স কর্মকর্তা আহমেদ কবির ৪ সদস্যের টিম নিয়ে সরাসরি সরেজমিনে এসে সুমন ভূইয়ার ভূয়া ডাক্তারির অভিযোগের সত্যতা যাচাই করতে আসলে একে একে বেরিয়ে আসে এমন চাঞ্চল্যকর তথ্য। ভূইয়া ফার্মেসী ও প্রেসক্রিপশন পয়েন্টের মালিক সুমন ভূঁইয়ার নিকট তার নামিয় প্রেসক্রিপশন প্যাডে ব্যবহার করা ডি,এম,এ, ও এক্স-পি-টির অর্থ জানতে চাইলে সুমন উত্তর দিতে অক্ষম হন। এমনকি মা ও শিশু প্রশিক্ষণ প্রাপ্তের সার্টিফিকেট দেখতে চাইলে সুমন কোন সদুত্তর দিতে পারেনি। তাছাড়াও তার শিক্ষাগত যোগ্যতা এবং তার এস,এস,সি, ও এইচ,এস,সি র সার্টিফিকেট দেখতে চাইলে, সার্টিফিকেট দেখাতেও ব্যর্থ হয়। এক পর্যায়ে উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা আহমেদ কবির ডাঃ নামধারী সুমন ভূইয়ার নিকট টিভি রোগের উৎস জানতে চাইলে তাও তিনি বলতে পারেন নি। সুমন ভূঁইয়ার ফার্মেসীর সামনে বিপুলসংখ্যক জনগণ জড়ো হওয়ার পর অবস্থা বেগতিক দেখে সুমন ভূঁইয়া সবকিছু অন্যায় বলে মেনে নেয়। এবং উপস্থিত উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা আহমেদ কবির সহ সকল জনগণের কাছে ক্ষমা চায়।
এ বিষয়ে উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাঃ আহম্মদ কবীর বলেন, অভিযোগ পেয়ে আমি সরেজমিনে রাজামেহার বাজারে গিয়ে অভিযোগের সত্যতা পেয়েছি। এবং অভিযুক্ত ডাক্তার পরিচয় দানকারী সুমন ভূঁইয়া তাহার অপরাধ স্বীকার করে ৫ ইং সেপ্টেম্বর (রোববার) ডাক্তার পরিচয় দানকারী সুমন ভূঁইয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এসে ৩ শত টাকার স্ট্যাম্পে মুচলেখা দিয়েছে যে আর কখনো নিজেকে ডাক্তার পরিচয় দেবেনা এবং প্রেসক্রিপশন লিখবে না। শুধু ঔষধ বিক্রি করবে।
এ বিষয়ে সুমন ভূঁইয়া জানান, উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা আহম্মদ কবির সাহেব আমার ফার্মেসিতে এসে আমাকে কিছু প্রশ্ন করেছিলেন আমি সদুত্তর দিতে না পারায় আমাকে ভবিষ্যতে ফার্মেসির ঔষধ বিক্রি ব্যতীত অন্য কোনো কর্মকাণ্ডে না থাকার জন্য সতর্ক করে গেছেন। আমি ৫ ই সেপ্টেম্বরে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ডাক্তার আহমেদ কবির সাহেব এর নিকট গিয়ে মুচলেকা দিয়ে আসি।
তবে সুমন ভূঁইয়ার আরো বলেন, তাকে একটা মহল ষড়যন্ত্র করে ফাঁসানো চেষ্টা করছে। তিনি এই সমস্ত কর্মকাণ্ডে জড়িত নেই বলেও জানান।
Please follow and like us:

পাঠক গনন যন্ত্র

  • 4723714আজকের পাঠক সংখ্যা::
  • 1এখন আমাদের সাথে আছেন::

সর্বশেষ খবর

এ বিভাগের আরও খবর

প্রধান সম্পাদক- খোরশেদ আলম চৌধুরী, সম্পাদক- আশরাফুল ইসলাম জয়,  উপদেষ্টা সম্পাদক- নজরুল ইসলাম চৌধুরী।

প্রধান সম্পাদক কর্তৃক  প্রচারিত ও প্রকাশিত

ঢাকা অফিস : রোড # ১৩, নিকুঞ্জ - ২, খিলক্ষেত, ঢাকা-১২২৯,

সম্পাদক - ০১৫২১৩৬৯৭২৭,০১৮৮০৯২০৭১৩

Email-dailynayaalo@gmail.com নিউজ রুম।

Email-Cvnayaalo@gmail.com সিভি জমা।

 

 

সাইট উন্নয়নেঃ ICTSYLHET