৩১শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, শনিবার, ১৬ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২০শে জিলহজ, ১৪৪২ হিজরি

শিরোনামঃ-
  • হোম
  • বিশেষ প্রতিবেদন
  • খোকসা-কুমারখালীতে গড়াই নদীতে অব্যাহত নদী ভাঙ্গনে সর্বহারা হয়ে পড়েছে হাজারো মানুষ

খোকসা-কুমারখালীতে গড়াই নদীতে অব্যাহত নদী ভাঙ্গনে সর্বহারা হয়ে পড়েছে হাজারো মানুষ

Khorshed Alam Chowdhury

আপডেট টাইম : আগস্ট ০৬ ২০১৬, ০১:০৩ | 669 বার পঠিত

মো.নাজমুল হাসান নাহিদ কুষ্টিয়া জেলা প্রতিনিধি।।।গড়াই নদীর অব্যাহত ভাঙনে হুমকীর মুখে পড়েছে কুষ্টিয়ার কুমারখালী ও খোকসা উপজেলার নদীকূলবর্তী হাজার হাজার মানুষ । চরম হতাশা আর আতঙ্কের মধ্যে দিয়ে দিন অতিবাহিত করছে এই দুই উপজেলার শত শত পরিবারর। এখন পর্যন্ত সরকারী কোন সহযোগীতা পায়নি তারা। দ্রæতই এই ভাঙন প্রতিরোধে স্থায়ী ব্যবস্থা গ্রহন না করলে আরো শত শত ঘরবাড়ী বিলীন হয়ে যাবে এমন আশংকা এলাকাবাসীর। শুক্রবার সরোজমিনে গিয়ে দেখা যায়, কুষ্টিয়ার কুমারখালী উপজেলার চাপড়া ইউনিয়নের মাধুলিয়া, বহলা, ভাড়–রা, যদুবয়রা ইউনিয়নের গোবিন্দপুর ও এনায়েতপুর এবং খোকসা উপজেলার ওসমানপুর, বেতবাড়িয়া ও খোকসা পৌরসভা সংলগ্ন কমলাপুর এলাকার মিয়া পাড়া, ঋষিপাড়া, হিজলাবট, খানপুর, চান্দট, জাগলবার এলাকায় গড়াই নদীর ভয়াবহ ভাঙনের মুখে পড়েছে। ইতিমধ্যে গড়াই নদীর ভাঙনে গত কয়েকদিনে এসব গ্রামের শত শত ঘরবাড়ী, গাছপালা, শিক্ষা ও ধর্মীও প্রতিষ্ঠান, রাস্তাঘাট এবং ফসলী জমি নদীগর্ভে বিলীন হয়ে গেছে। এই দুই উপজেলার নদীকূলবর্তী মানুষরা সব হারিয়ে মানবেতর দিন কাটাচ্ছে। খোকসার কমলাপুর মিয়াপাড়ার বাসিন্দা ফাতেমা বেগম বলেন, গত তিন বছরে তার তিনবার ঘর ভেঙেছে। এবারও ভাঙলো। এখন বৃদ্ধ স্বামী নিয়ে তার মাথা গোজার জায়গা নেই। এ বিষয়ে কুমারখালী উপজেলার চাপড়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মনির হাসান রিন্টু জানান, পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মকর্তাদের নিয়ে ভাঙন এলাকা পরিদর্শন করেছি। ভাঙন প্রতিরোধে প্রয়োজনীয় সব ধরনের ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে। খোকসা পৌর মেয়র তারিকুল ইসলাম বলেন, কমলাপুরের নদী ভাঙ্গন রোধে অস্থায়ী ভিত্তিতে ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। এ ছাড়া ভাঙ্গন রোধে স্থায়ী ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য পানি উন্নয়ন বোর্ডকে অবহিত করা হয়েছে। খোকসা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রেবেকা খান জানান, সরেজমিন পরিদর্শনে লোকজনের সঙ্গে কথা বলে শতাধিক বাড়ি বিলীন হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে জানা গেছে। কৃষি জমির থেকে মানুষের বসতবাড়ি বেশি বিলীন হচ্ছে। তাদের তালিকা করা হচ্ছে। জরুরী ভিত্তিতে তাদের ৩ মেট্রিকটন চাউল বিতরন করা হয়েছে, এছ্ড়াাও অনান্য সহায়তার জন্যে ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। তাছাড়া বেশি ক্ষতিগ্রস্থদের খাস জমি বন্দোবস্ত দিয়ে পুর্নবাসনের আওয়তায় নেওয়া হবে। এছাড়া নদী ভাঙন প্রতিরোধে ব্যবস্থা নিতে পানি উন্নয়ন বোর্ডকে লিখিতভাবে অবহিত করা হচ্ছে।

Please follow and like us:

পাঠক গনন যন্ত্র

  • 4657496আজকের পাঠক সংখ্যা::
  • 5এখন আমাদের সাথে আছেন::

সর্বশেষ খবর

এ বিভাগের আরও খবর

প্রধান সম্পাদক- খোরশেদ আলম চৌধুরী, সম্পাদক- আশরাফুল ইসলাম জয়,  উপদেষ্টা সম্পাদক- নজরুল ইসলাম চৌধুরী।

প্রধান সম্পাদক কর্তৃক  প্রচারিত ও প্রকাশিত

ঢাকা অফিস : রোড # ১৩, নিকুঞ্জ - ২, খিলক্ষেত, ঢাকা-১২২৯,

সম্পাদক - ০১৫২১৩৬৯৭২৭,০১৮৮০৯২০৭১৩

Email-dailynayaalo@gmail.com নিউজ রুম।

Email-Cvnayaalo@gmail.com সিভি জমা।

 

 

সাইট উন্নয়নেঃ ICTSYLHET