১লা মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, সোমবার, ১৬ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১৬ই রজব, ১৪৪২ হিজরি

শিরোনামঃ-
  • হোম
  • সকল সংবাদ
  • গোদাগাড়ীর নারী জঙ্গি সুমাইয়া ১০ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর ।

গোদাগাড়ীর নারী জঙ্গি সুমাইয়া ১০ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর ।

হুমায়ন আরাফাত, আশুলিয়া করেসপন্ডেন্ট।

আপডেট টাইম : মে ১৪ ২০১৭, ২৩:২৬ | 613 বার পঠিত

নাজিম হাসান,রাজশাহী :

রাজশাহীর গোদাগাড়ীর বেনীপুর জঙ্গি আস্তানা থেকে আত্মসমর্পণকারী নারী জঙ্গি সুমাইয়ার ১০ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছে আদালত। রোববার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে কড়া নিরাপত্তার মধ্যে সুমাইয়াকে রাজশাহীর সিনিয়ার জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির করে ১৫ দিনের রিমান্ডের আবেদন জানানো হয়। শুনানি শেষে বিচারক সাইফুল ইসলাম তার ১০ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। এই মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা গোদাগাড়ী থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আলতাফ হোসেনকে আলতাফ সিল্কসিটিনিউজকে নিশ্চিত করেছেন। এর আগে গত শনিবার গোদাগাড়ী থানা উপপরিদর্শ (এসআই) নাইমুল হক বাদী হয়ে জঙ্গি সুমাইয়ার বিরুদ্ধে ফায়ার সার্ভিস কর্মী হত্যা, পুলিশের উপর হামলা এবং বিস্ফোরক মামলা দায়ের করেন। এতে সুমাইয়াসহ আরো ১৫ জন জঙ্গির বিরেদ্ধে মামলা করা হয়। বিষয়য়ে গোদাগাড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হিপজুর আলম মুন্সি বলেন, ফায়ার সার্ভিস কর্মী হত্যা, পুলিশের উপর হামলা এবং বিস্ফোরক ব্যবহার করায় আত্মসমর্পণকারী সুমাইয়াসহ ১৫ জঙ্গির বিরুদ্ধে হত্যা ও বিস্ফোরক আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে। গত বৃহস্পতিবার ভোর থেকে উপজেলার বেনীপুর গ্রামের সাজ্জাদ আলী ওরফে মিস্টু (৫০) বাড়িটি ঘিরে রাখে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা। এরপর ভেতরে থাকা জঙ্গিদের আত্মসমর্পণের আহ্বান জানানো হয়। কিন্তু জঙ্গিরা তাতে সাড়া দেয়নি। ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা তখন বাড়িতে পানি স্প্রে করা শুরু করে। এ সময় জঙ্গিরা বাড়ি থেকে বের হয়ে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীদের ওপর হামলা চালায়। এক নারী জঙ্গি প্রকাশ্যে কুপিয়ে হত্যা করেন ফায়ার সার্ভিসের কর্মী আবদুল মতিনকে। এ সময় দুই পুলিশ সদস্যও আহত হন। শুক্রবার বেনীপুরে জঙ্গি আস্তানায় ‘অপারেশন সান ডেভিল’ সমাপ্ত ঘোষাণা করেছে, রাজশাহী রেঞ্জের অতিরিক্ত ডিআইজি নিশারুল আরিফ। এসময় জঙ্গি আস্তানা থেকে একটি পিস্তল, ২ রাউন্ড গুলি, একটি ম্যাগাজিন ও ১১টি বোমা উদ্ধার করা হয়েছে। এ ঘটনায় বাড়ির মালিক সাজ্জাদ হোসেন (৫০), তার স্ত্রী বেলী বেগম (৪৫), মেয়ে কারিমা খাতুন (১৯) ও চাঁপাইনবাবগঞ্জের আশরাফুল নিহত হয়। আর অভিযানের পর সাজ্জাদের মেয়ে সুমাইয়া পুলিশের কাছে আত্মসমর্পণ করে। বাড়ি থেকে উদ্ধার করা হয় সুমাইয়ার দুই শিশু সন্তানকে। শনিবার বেলা পৌনে ১২টার দিকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গ থেকে মরদেহগুলো দাফনের জন্য কোয়ান্টাম ফাউন্ডেশনের কাছে হস্তান্তর করা হয়। দুপুর সোয়া তিনটার দিকে নগরীর হেতমখাঁ গোরস্থানে তাদের দাফন সম্পন্ন হয়।

Please follow and like us:

পাঠক গনন যন্ত্র

  • 4392706আজকের পাঠক সংখ্যা::
  • 9এখন আমাদের সাথে আছেন::

সর্বশেষ খবর

এ বিভাগের আরও খবর

প্রধান সম্পাদক- খোরশেদ আলম চৌধুরী, সম্পাদক- আশরাফুল ইসলাম জয়,  উপদেষ্টা সম্পাদক- নজরুল ইসলাম চৌধুরী।

ঢাকা অফিস : রোড # ১৩, নিকুঞ্জ - ২, খিলক্ষেত, ঢাকা-১২২৯,

সম্পাদক - ০১৫২১৩৬৯৭২৭,০১৮৮০৯২০৭১৩

Email-dailynayaalo@gmail.com

প্রধান সম্পাদক কর্তৃক  প্রচারিত ও প্রকাশিত

সাইট উন্নয়নেঃ ICTSYLHET