২রা মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, মঙ্গলবার, ১৭ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১৭ই রজব, ১৪৪২ হিজরি

শিরোনামঃ-

ঝিনাইদহের মুক্তিযোদ্ধা পঞ্চানন বিশ্বাস চিকিৎসা খরচ না পাওয়ায় শয্যাশায়ী !

admin6

আপডেট টাইম : অক্টোবর ২১ ২০১৬, ২১:৪৫ | 688 বার পঠিত

ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ-
চিকিৎসার অভাবে শয্যাশায়ী ঝিনাইদহের মুক্তিযাদ্ধা পঞ্চানন বিশ্বাস। বর্তমানে তিনি অর্থের অভাবে চিকিৎসাও করাতে পারছেন না। শরীরের এক পাশের শক্তি হারিয়ে ফেলেছেন। চলাফেরা করতে না পারায় শয্যাগত তিনি।

ঝিনাইদহ সদর উপজেলার নলডাঙ্গা ইউনিয়নের ডাকাতিয়া গ্রামের মত কদার নাথ বিশ্বাসের ছেলে পঞ্চানন বিশ্বাস।
তিনি জানান, ১৯৭১ সালে তার বয়স ২৫ বছর হবে। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আহবানে তিনি যুদ্েেধ নেমে পড়ে। ভারতের বিহার ৮ নম্বর সেক্টর অবাঙ্গালী রাম প্রকাশ এর নিকট থেকে তিনি প্রশিক্ষণ গ্রহণ কেের দেশে ফিরে আসেন। এরপর জেলার বিভিন্ন স্থানে যুদ্েেধ অংশ নেন তিনি। দেশ স্বাধীন হওয়ার পর কৃষি কাজ করে সংসার চালান তিনি।

মুক্তিযোদ্ধা ভাতা পাচ্ছেন। ৭৫ বছর বয়স এখন তার। ২ ছেলে ও স্ত্রীকে নিয়ে সংসার তার। মেয়েটিকে বিয়েও দিয়েছেন। ৫ বছর আগে হঠাৎ অসুস্থ্য হয়ে পড়েন তিনি। শরীরের এক পাশ পড়ে যাওয়ায় বিছানাগত তিনি। প্রথম দিক বাড়ীর জমি জায়গা বিক্রি করে চিকিৎসা করালেও এখন অর্থাভাবে আর চিকিৎসা করাতে পারছেন না।

নলডাঙ্গা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান কবির হোসেন বলেন, পঞ্চানন বিশ্বাস অসহায় একটি মানুষ। নিজের বলে তার কিছুই নেই। বর্তমানে তার যে অবস্থা তাতে জরুরী চিকিৎসার প্রয়ােজন।

আর এ চিকিৎসার জন্য সরকার, কোন প্রতিষ্ঠান বা সমাজের বিত্তবান লোকজন এগিয়ে এসে তার চিকিৎসার ব্যয়ভার বহন করলে হয়তো আবার সে সুস্থ্য হয়ে সবার মাঝে সুদরভাবে বেঁচে থাকতে পারবে।

এ ব্যাপারে ঝিনাইদহ সদর উপজলা মুক্তিযাদ্ধা কমান্ডার আলহাজ্ব সিদ্দিক আহমেদ বলেন, সরকারের পক্ষ থেকে যেকোন প্রকার সুবিধা পেলে তাকে সহযােগীতা করা হবে।

Please follow and like us:

পাঠক গনন যন্ত্র

  • 4393823আজকের পাঠক সংখ্যা::
  • 0এখন আমাদের সাথে আছেন::

সর্বশেষ খবর

এ বিভাগের আরও খবর

প্রধান সম্পাদক- খোরশেদ আলম চৌধুরী, সম্পাদক- আশরাফুল ইসলাম জয়,  উপদেষ্টা সম্পাদক- নজরুল ইসলাম চৌধুরী।

ঢাকা অফিস : রোড # ১৩, নিকুঞ্জ - ২, খিলক্ষেত, ঢাকা-১২২৯,

সম্পাদক - ০১৫২১৩৬৯৭২৭,০১৮৮০৯২০৭১৩

Email-dailynayaalo@gmail.com

প্রধান সম্পাদক কর্তৃক  প্রচারিত ও প্রকাশিত

সাইট উন্নয়নেঃ ICTSYLHET