১৮ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, বৃহস্পতিবার, ৩রা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ১১ই মহর্‌রম, ১৪৪৬ হিজরি

শিরোনামঃ-
  • হোম
  • সকল সংবাদ
  • টাকা বিনিময়ে খালাস দেওয়ার অপরাধে মালদ্বীপের প্রধান বিচারপতি জেলে




টাকা বিনিময়ে খালাস দেওয়ার অপরাধে মালদ্বীপের প্রধান বিচারপতি জেলে

প্রেস বিজ্ঞপ্তি।

আপডেট টাইম : ফেব্রুয়ারি ১৪ ২০১৮, ১৩:৩৮ | 730 বার পঠিত | প্রিন্ট / ইপেপার প্রিন্ট / ইপেপার

জুয়েল খন্দকার, নিজস্ব প্রতিবেদক:- মালদ্বীপ পুলিশের প্রধান আহম্মেদ শিফান জানায় যে মালদ্বীপে অরাজকতার জন্যে দায়ী সাবেক প্রধানা বিচারপতি, সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি আবদুল্লা সাঈদ উচ্চ আদালতের বিচারক দ্বারা স্থানান্তরিত ২.৪ মিলিয়ন মার্কিন ডলারের বড় মুনাফা পেয়েছিল।
মঙ্গলবার বিকেলে পুলিশের প্রধান জানায়, সুপ্রিম কোর্টের বিচারক একটি বিশিষ্ট স্থানীয় কর্পোরেশনের কাছ থেকে বিপুল পরিমাণ অর্থ পেয়েছেন, যা তিনি বিদেশে রিয়েল বানিজ্যে বিনিয়োগ করার জন্য ব্যবহার করেছেন। পুলিশ পরিসেবা মিডিয়া কর্মকর্তা আহমেদ শিফান দাবি করেন যে, প্রধান বিচারপতি বিরোধীদলের প্রচেষ্টা কুপ্রে চক্রান্তের সাথে সম্পৃক্ততার পরিমাণ পেয়েছেন।
শিফান আরও বলেন যে প্রধান বিচারপতি সাঈদের সাক্ষাত্কারের দৃঢ় প্রমাণ সংগ্রহের জন্য একাধিক বিদেশী কর্পোরেশনকে বিনিয়োগের সুযোগের জন্য একত্রিত করা হয়েছিল এবং বিদেশে বেশ কয়েকটি মূল্যবান জিনিসগুলি কেনার চেষ্টা করা হয়েছিল।
এ ছাড়া  পুলিশ আর দাবি করেছে যে তারা শীর্ষ আদালতের আইটি বিভাগকে বন্ধ করার জন্য প্রধান বিচারপতির প্রমাণ পেয়েছে। পুলিশের প্রধান আহম্মেদ শিফান আর জানায় যে বিচারপতি টাকা খেয়ে বিরোধী দলের নেতাদেরকে কোন তদন্ত ছাড়াই বেকসুর খালাস প্রধান করেন। আর সুপ্রিমকোর্টের এই রায় নিয়ে বিরোধী দলের নেতাদের মুক্তির দাবিতে গুটা মালদ্বীপ জুড়ে শুরু হয় তুলকালাম, আর এই পুরো ঘটনার জন্যে দায়ী প্রধান বিচারপতি আব্দুল্লাহ্ সাঈদ।
সাবেক রাষ্ট্রপতি মামুন আবদুল গাইয়ুমের সেক্রেটারি নাজমা হুসেনের কাছ থেকে পাওয়া বাক্সটি পুনরুদ্ধারের দাবি করেছে পুলিশ। এক সমাবেশে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্য আহমেদ ফারিস মামুনকে একটি ডকুমেন্ট দেয়া হয়েছে। প্রভাব ট্রায়ালমঙ্গলবার কর্তৃপক্ষ তদন্ত বা পুলিশ স্বচ্ছতা সম্পর্কিত দুর্নীতি ছড়িয়ে দেওয়ার থেকে বিরত থাকার জন্য সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহারকারীদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে।
মালদ্বীপ পুলিশ জানায়, নজমা হুসেনের বাসা থেকে উদ্ধারকৃত বক্স থেকে অনেক প্রমাণ পাওয়া গেছে। অতিরিক্ত কর্তৃপক্ষ ২১৫,০০০ মার্কিন ডলারের খোঁজে এবং আরও একটি এমভিআর ১,৫০,০০০ টি শীর্ষ আদালতের বিচারক আলী হামিদের একটি ব্যাগ থেকে নিশ্চিত করেছে, যা অভ্যুত্থান চক্রান্তের সাথে যুক্ত রয়েছে। এই মামলাটির সাথে ঝড়িত মোট ১৩ জনকে গ্রেফতার করেছেন পুলিশ।
Please follow and like us:

সর্বশেষ খবর

এ বিভাগের আরও খবর

প্রধান সম্পাদক- খোরশেদ আলম চৌধুরী, সম্পাদক- আশরাফুল ইসলাম জয়,  উপদেষ্টা সম্পাদক- নজরুল ইসলাম চৌধুরী।

প্রধান সম্পাদক কর্তৃক  প্রচারিত ও প্রকাশিত

ঢাকা অফিস : রোড # ১৩, নিকুঞ্জ - ২, খিলক্ষেত, ঢাকা-১২২৯,

সম্পাদক - ০১৫২১৩৬৯৭২৭,০১৬০১৯২০৭১৩

Email-dailynayaalo@gmail.com নিউজ রুম।

Email-Cvnayaalo@gmail.com সিভি জমা।

 

 

সাইট উন্নয়নেঃ ICTSYLHET