১৫ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, সোমবার, ৩১শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ৮ই মহর্‌রম, ১৪৪৬ হিজরি

শিরোনামঃ-
  • হোম
  • সকল সংবাদ
  • ঠাকুরগাঁওয়ে কাঁঠালডাংগী তিরনই নদীতে বারুনী পুজা অনুষ্ঠিত




ঠাকুরগাঁওয়ে কাঁঠালডাংগী তিরনই নদীতে বারুনী পুজা অনুষ্ঠিত

মোহাম্মদ ইমন মিয়া, বাঙ্গরা,কুমিল্লা করেসপন্ডেন্ট।

আপডেট টাইম : মার্চ ১৬ ২০১৮, ১৮:০৪ | 697 বার পঠিত | প্রিন্ট / ইপেপার প্রিন্ট / ইপেপার

ঠাকুরগাঁও সংবাদদাতা :
ঠাকুরগাঁও জেলার রুহিয়া থানার রুহিয়া পশ্চিম ইউনিয়নে কাঠালডাংগী তিরনই নদীতে দুইদিন ব্যাপী সনাতন ধর্মালম্বিদের ভগবানের তুষ্টি পূণ্য বারুনী পুজা স্নান উৎসব শুরু হয়েছে। দেহ মন কে পাপ মুক্ত করে ভগবানের তুষ্টি আর পর্নজন্মের জন্য জলে পূণ্য স্নান শুরু করেছেন সনাতন ধর্মালম্বীরা।
১৫ মার্চ (বৃহস্পতিবার) থেকে কাঠালডাংগী তিরনই নদীতে দুইদিন ব্যাপী শুরু হওয়া বারুনী পুজা উৎসব উপলক্ষে দিন ব্যাপী ঐতিহ্যবাহী বারুনী মেলার আয়োজন করে পুজা উদযাপন কমিটি। এখানকার (মারিয়া) রক্ষণাবেক্ষণকারী বিসম্বর বলেন, এখানে বৃটিশ শাসনের সময় অনেক বড় আকারে পুজা পালন হতো। বর্তমানে জায়গা না থাকায় আগের মত আর পালন করা সম্ভব হয় না। সনাতন ধর্মমতে চৈত্রের মধুকৃষ্ণা ত্রিদশী তিথির এই দুই দিনে নদীর উত্তরমুখী স্রোতে স্নান করলে পাপ মোচন হয়। দেহ-মনকে পরিশুদ্ধ করতে অনেকে পূজা অর্চনা করে মাথার চুল বিসর্জন দেয়। স্নানমন্ত্র পাঠ করে হাতে বেল পাতা, ফুল, ধান, দূর্বাঘাস, কলা ইত্যাদি অর্পনের মাধ্যমে স্নান সম্পন্ন করেন তারা। পিতা-মাতার স্বর্গবাসে এই স্নান জরুরী মনে করেন হিন্দু ধর্মালম্বীরা। আশেপাশের শত শত সনাতন ধর্মালম্বী অংশ নেয় এই পুজা ও স্নান উৎসবে। এ উপলক্ষ্যে  চলছে মেলাও। পূণ্যার্থী ও ভক্তদের মিলন মেলায় পরিণত হয়েছে তীর্থ স্থান। চলবে শনিবার সন্ধ্যা পর্যন্ত। প্রতি বছরই মধুকৃষ্ণা এয়োদশী তিথিতে এ মেলা অনুষ্টিত হয়।
Please follow and like us:

সর্বশেষ খবর

এ বিভাগের আরও খবর

প্রধান সম্পাদক- খোরশেদ আলম চৌধুরী, সম্পাদক- আশরাফুল ইসলাম জয়,  উপদেষ্টা সম্পাদক- নজরুল ইসলাম চৌধুরী।

প্রধান সম্পাদক কর্তৃক  প্রচারিত ও প্রকাশিত

ঢাকা অফিস : রোড # ১৩, নিকুঞ্জ - ২, খিলক্ষেত, ঢাকা-১২২৯,

সম্পাদক - ০১৫২১৩৬৯৭২৭,০১৬০১৯২০৭১৩

Email-dailynayaalo@gmail.com নিউজ রুম।

Email-Cvnayaalo@gmail.com সিভি জমা।

 

 

সাইট উন্নয়নেঃ ICTSYLHET